দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর প্রথম বাতিল হলো ঐতিহ্যবাহী উইম্বলডেন

এপ্রিল ০২ ২০২০, ০৮:০৯

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের থাবা এবার পড়েছে উইম্বলডেনের ওপর। প্রাণঘাতি ভাইরাসটির কারণে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর প্রথমবারের মতো বাতিল হয়ে গেল এই ঐতিহ্যবাহী গ্র্যান্ড স্লাম টেনিস টুর্নামেন্ট। ব্রিটেনে দেশব্যাপী লকডাউন হওয়ার এক সপ্তাহ পরে টানা দুদিনব্যাপী জরুরি বৈঠকে এ সিদ্ধান্তের কথা বুধবার নিশ্চিত করেন অল ইংল্যান্ড লন টেনিস ক্লাবের চেয়ারম্যান ইয়ান হিউইট।

আগামী ২৯ জুন থেকে ১২ জুলাই লন্ডনের কাছাকাছি ক্লাবের ঘাসের কোর্টে উইম্বলডেন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনার কবলে পড়ে ১৯৪৫ সালের পর প্রথমবারের মতো পুরানো ও ঐতিহ্যবাহী টুর্নামেন্টটি বাতিল হয়ে গেল। উইম্বলডেনের ২০২০ সালের ইভেন্ট বাতিল হলেও পরবর্তী বছরের সূচি নির্ধারিত হয়েছে। ২০২১ সালের ২৮ জুন থেকে ১১ জুলাই পরবর্তী ইভেন্টটি অনুষ্ঠিত হবে।

এদিকে এবারের উইম্বলডন বাতিল হওয়ার অর্থ হচ্ছে আটবারের চ্যাম্পিয়ন রজার ফেদেরার এবং সাতবারের সেরা সেরেনা উইলিয়ামসকে হয়তো আর ঘাসের কোর্টের এই গ্র্যান্ড স্ল্যামে দেখা যাবে না। কারণ ২০২১ সালে ফেদেরার এবং সেরেনার বয়স প্রায় ৪০ বছরের কাছাকাছি হয়ে যাবে।

উইম্বলডন বাতিল হয়ে যাওয়ার খবর শুনে দুই তারকাই প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন। ফেদেরার টুইটারে লিখেছেন, ‘বিধ্বস্ত লাগছে।’ সেরিনা টুইট করেন, ‘খবরটা শুনে আমি দুঃখিত।’

অন্যদিকে গতবারের চ্যাম্পিয়ন হালেপের প্রতিক্রিয়া, ‘উইম্বলডন এবার আয়োজিত হবে না শুনে খুব খারাপ লাগছে। গতবারের ফাইনালটা আমার জীবনের অন্যতম আনন্দের মুহূর্ত হয়ে থাকবে। কিন্তু এই মুহূর্তে আমরা টেনিসের থেকেও আরও বড় একটা লড়াই করছি। উইম্বলডন ফিরবে। আমাকে খেতাব রক্ষার লড়াইয়ে নামার জন্য আরও কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে।’ সূত্র : ইউএনবি

Share