প্রকাশিত হয়েছে: Thu, Jan 2nd, 2020

বাফুফেকে ফিফার জরিমানা

অপেশাদারিত্বের উপস্থিতি বাংলাদেশের ফুটবলের সর্বত্রই। ঘরোয়া লিগ বা টুর্নামেন্ট এবং আন্তর্জাতিক ম্যাচ সর্বত্রই এই দায়িত্বজ্ঞানহীন আচরণ। এটা সংশ্লিষ্ট সবারই। এ কারণেই এবার বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনকে ১৫ হাজার সুইস ফ্রাঙ্ক জরিমানা করেছে বিশ্ব ফুটবলের সর্বময় সংস্থা ফিফা। টাকার অঙ্কে যা ১৩ লাখ টাকা। সপ্তাহখানেক আগে এই জরিমানার কথা বাফুফেকে জানায় ফিফা।

বুধবার এই তথ্য মিডিয়াকে দেন বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ।

এ দিকে এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশন (এএফসি) বাফুফেতে চাকরিরত ১৫ কোচের তিন মাসের বেতন ২৮ হাজার ডলার বেতন কেটে নিয়েছে, টাকায় যা ২৩ লাখ ৯০ হাজার টাকা।

১০ অক্টোবর বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হয় ২০২২ কাতার বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচ। সেই ম্যাচ শেষে আবাহনীর গ্যালারি খ্যাত দক্ষিণ-পশ্চিম গ্যালারির ফেন্সিং ডিঙিয়ে মাঠে প্রবেশ করে কয়েকজন দর্শক। এই ছবি ক্যামেরাবন্দী করে ফিফায় পাঠিয়ে দেন ম্যাচ কমিশনার। এরপর ফিফা বাফুফের কাছে ব্যাখ্যা চাইলেও জবাবে সন্তুষ্ট হতে পারেনি। ফিফার ডিসিপ্লিনারি কমিটির মতে, এভাবে মাঠে প্রবেশ এক অর্থে হামলারই প্রচেষ্টা। তাই বাফুফেক এই বিশাল অর্থের জরিমানা। বাফুফে অবশ্য এই সিদ্ধান্তের বিপক্ষে আপিলও করবে ৩০ দিনের মধ্যে। তবে তেমন কোনো কাজ হবে না বলে ইঙ্গিত দিলেন বাফুফে সেক্রেটারি।

এভাবে বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামের গ্যালারির ফেন্সিং টপকে মাঠে প্রবেশ নতুন কিছু নয়। ২০১৫ সালে বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়ার রাশিয়া বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচের দিনও খেলা শেষে ফেন্সিং টপকে মাঠে প্রবেশ করেছিল কয়েকজন অস্ট্রেলিয়ান দর্শক। তাদের চেষ্টা করেও ঠেকানো যায়নি। তারা বিদেশী, অতিথি দলের সমর্থক এই যুক্তিতে নিরাপত্তাকর্মীদের শৈথিল্য ছিল। ওই অপরাধেও তখন ফিফার ডিসিপ্লিনারি কমিটি সাত লাখ সুইস ফ্রাঙ্ক জরিমানা করেছিল।

তাহলে বাফুফে কেন চার বছর আগের ঘটনা থেকে শিক্ষা নিলো না। যেখানে শুধু অর্থদণ্ডই বিষয় নয়। জড়িত দেশের মানসম্মানও। এতে আন্তর্জাতিক ম্যাচ আয়োজনের যোগ্যতা নিয়েও প্রশ্ন ওঠে বাফুফের। ফেডারেশন সেক্রেটারির মতে, এখন সবাইকেই সেটা বুঝতে হবে। মাঠে যারা নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকেন, মাঠে আসা দর্শক সবাইকেই এখন থেকে আরো সচেতন হতে হবে।

এর আগে ঢাকা আবাহনী এএফসি প্রেসিডেন্টস কাপের গ্রুপ পর্বের স্বাগতিক হয়ে জরিমানা গুনেছিল পাঁচ হাজার ডলার। ২০১০ সালে ম্যাচ শেষে আবাহনীর এক দর্শক মাঠে ভারী বস্তু ছুড়ে মারলে তা ম্যাচ কমিশনারের নজরে পড়ে। পরে তার দেয়া রিপোর্টের ভিত্তিতে জরিমানা। এরপর আর ওই আসরের ভেনু নেয়নি আবাহনী।

২০১৫ সালের বিশ্বকাপ বাছাই পর্বে ঢাকার ম্যাচে খেলার নির্ধারিত সময়ের চেয়ে এক মিনিট পরে মাঠে নামায় জরিমানা করা হয়েছিল বাংলাদেশ দলকে। তা প্রায় তিন হাজার ডলার।

এএফসির দেয়া বেতনে বাফুফেতে কাজ করছেন ১৯ জন কোচ। তাদের ১৫ জনের নিয়মিত বাফুফেতে এসে হাজিরা খাতায় সই করতে বড্ড অনীহা। তাদের এই বিষয়ে বারবার তাগাদা দেয়া হলেও পাত্তা দিতেন না। বাফুফের সাবেক টেকনিক্যাল অ্যান্ড স্ট্র্যাটেজিক্যাল ডিরেক্টর পল স্মলির সময় কঠোর নির্দেশ দেয়া হলেও কানে তোলেননি এই কোচরা। পরে এএফসি সেই হাজিরা খাতা নিয়ে যায়। তা পরীক্ষা করেই ১৫ কোচের তিন মাসের বেতন ২৮ হাজার ডলার কেটে রেখে দেয় এএফসি। বাফুফে সেক্রেটারি জানান, শুধু মহিলা দলের চার কোচ নিয়মিত হাজিরা খাতায় সই করার তারা পুরো বেতনই পাচ্ছেন।

Leave a comment

XHTML: You can use these html tags: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

বাফুফেকে ফিফার জরিমানা